শনিবার পর্যন্ত বৃষ্টির পূর্বাভাসে মাথায় হাত পুজো উদ্যোক্তাদের, চিন্তায় ফেলেছে বাজি বিক্রেতাদেরও

শনিবার পর্যন্ত বৃষ্টির পূর্বাভাসে মাথায় হাত পুজো উদ্যোক্তাদের, চিন্তায় ফেলেছে বাজি বিক্রেতাদেরও

পি.এম.নিউজ ৩৬৫;ডিজিটাল ডেস্ক:বুধবার রাতের পর বৃহস্পতিবার সকালেও বারংবার বৃষ্টিতে ভিজছে কলকাতা সহ গোটা রাজ্য। সকাল থেকেই আকাশ মেঘলা। আবহাওয়া দপ্তর সূত্রে খবর, শনিবার পর্যন্ত এমনই থাকবে আবহাওয়া। বাড়বে বৃষ্টির পরিমাণ। তবে কালীপুজোর আগেই দক্ষিণবঙ্গে বৃষ্টি কমবে বলে আশ্বস্ত ও করেছেন আবহাওয়া দপ্তর।

যদিও উত্তরবঙ্গের জন্য কোনও সুখবর মেলেনি।
আর ঠিক দু’দিন পরেই ভূত চতুর্দশী। রবিবার কালীপুজো। আগেই আবহাওয়া দপ্তর পূর্বাভাস দিয়েছিল যে কালীপুজো ভাসাতে পারে বৃষ্টি।

কার্যত সেই আশঙ্কাই সত্যি হল। বুধবার সকালে রোদ ঝলমলে আকাশ থাকলেও বেলা বাড়তেই ক্রমশ কালো মেঘে ঢেকে যায় কলকাতা–সহ রাজ্যের একাধিক জেলার আকাশ। সন্ধেতেই বৃষ্টিতে ভেজে তিলোত্তমা। রাতভোর একনাগাড়ে চলে বৃষ্টি। বৃহস্পতিবার সকালেও একই পরিস্থিতি।

আবহাওয়া দপ্তর সূত্রে খবর, শনিবার পর্যন্ত দক্ষিণবঙ্গের জেলাগুলিতে ভারী থেকে অতিভারী বৃষ্টির সম্ভাবনা। তবে রবিবার থেকেই ধীরে ধীরে স্বাভাবিক হবে পরিস্থিতি। অর্থাৎ এখনও পর্যন্ত পাওয়া তথ্য অনুযায়ী বলা যেতেই পারে যে কালীপুজো ও দেওয়ালিতে বাধ সাধবে না বৃষ্টি। যদিও উত্তরবঙ্গের জন্য সুখবর শোনাতে পারেনি আবহাওয়া দপ্তর। মালদা ও দুই দিনাজপুরের কালীপুজো ভাসাতে পারে বৃষ্টি, এমনটাই সূ্ত্রের খবর।

কিন্তু শনিবার পর্যন্ত বৃষ্টির পূর্বাভাসে মাথায় হাত পুজো উদ্যোক্তাদের। পুজোর মুখে বৃষ্টি চিন্তায় ফেলেছে বাজি বিক্রেতাদেরও। এদিকে, দুই বঙ্গের বাসিন্দাদের জন্য সুখবরও শুনিয়েছে আবহাওয়া দপ্তর। নিম্নচাপ সরে গেলেই এ রাজ্যে ঢুকতে পারে উত্তুরে হাওয়া। ও। এদিকে, দুই বঙ্গের বাসিন্দাদের জন্য সুখবরও শুনিয়েছে আবহাওয়া দপ্তর। নিম্নচাপ সরে গেলেই এ রাজ্যে ঢুকতে পারে উত্তুরে হাওয়া।