রাস্তায় মাছ ধরে অভিনব প্রতিবাদ ভাঙড়ে

সাকিরুল ইসলাম, পিএম নিউজ, ভাঙড়: গাড়ি আটকে মাছ ধরতে দেখা গিয়েছে রাস্তায় । দীর্ঘদিন ধরে ভাঙ্গড়ের ‘আবু হুদা রোড’ বিকল অবস্থায় পড়ে রয়েছে, বছরের পর বছর কেটে যায় কিন্তু রাস্তা সারায় আর হয় না‌। ২০১১ সালের পর থেকে মাঝে মাঝে রাস্তা বিচ্ছিন্ন ভাবে মেরামতি হলেও সম্পূর্ণ রাস্তার কাজ হয়নি এখনও।আমরা দেখেছি কখনও আরাবুল ইসলাম, কখনও রেজ্জাক মোল্লা,আবার কখনো জেলা পরিষদ সদস্য মোস্তাক আহমেদ প্রতিশ্রুতি দেয়; কিন্তু কাজ কিছুই হয় না,এমনটি অভিযোগ এলাকার মানুষের। রীতিমত রাস্তা সারাইয়ের দাবিতে গতবছর সাতুলিয়া মাদ্রাসার ছাত্র-ছাত্রীরা পথ অবরোধ করে সাতুলিয়া চৌমাতাতে।সেদিন ভাঙড় টু ব্লকের জয়েন্ট বিডিও এসে ছাত্র ছাত্রীদের আন্দোলন কে তুলে দেন এবং রাস্তা সারাইয়ের প্রতিশ্রুতি দেন কিন্তু আজও সে রাস্তার হাল ফেরেনি। মাসখানেক আগে ‘দিশা’ নামে একটি সমাজ সেবামূলক সংগঠনের পক্ষ থেকে রাস্তা সারাইয়ের দাবিতে বি ডি ও-কে ডেপুটেশন দেওয়া হয়। বিডিও এক মাসের মধ্যে কাজ করে দেবে বললেও এখনো কাজ হয়নি। কয়েকদিন আগে রেজ্জাক মোল্লা পিঠাপুকুর গ্রামে “দিদিকে বলো” প্রোগ্রাম নিয়ে জনসংযোগ করতে যান, সেখানে রীতিমত সাধারণ মানুষের কাছে অপমানিত হয় ভাঙ্গড়ের মন্ত্রী ও বিধায়ক রেজ্জাক মোল্লা। গতকাল রাতের বৃষ্টির পরে আবুহুদা রোডের পিঠাপুকুর বাজার নর্দমায় পরিণত হয়, আজ সকালে সেখানে বাচ্চাদের মাছ ধরতে দেখা যায়।

গত বছর এই বাজারের দোকানদাররা এই রাস্তা সারাইয়ের জন্য প্রতিবাদ জানিয়ে রাস্তায় ধান রুয়ে দেয়, তার পরেও হাল ফেরেনি রাস্তার, সকালে মাছ ধরতে দেখা যায় বাচ্চাদের, তবে একজন দোকানদার হুঁশিয়ারি দিয়ে বলেন যদি রাস্তা সারাই না হয় তাহলে এবার মাছ চাষ করব।

কখনো ছাত্র-ছাত্রীদের পথ অবরোধ, কখনো ব্যবসায়ীদের ধান রুয়ে প্রতিবাদ, কখনো সাধারণ মানুষের কাছে নেতৃত্বে অপমান, আবার কখনো বিভিন্ন গণসংগঠনের ডেপুটেশন, এত কিছুর পরেও তাদের কানে যেন ঢুকছে না এই কথা, বারবার প্রতিশ্রুতি দিয়েও কাজ করছে না তারা, একজন আক্ষেপ করে বলেন আমার মনে হয়, ভাঙ্গড়ের নেতারা কেউ বেঁচে নেই।

তবে এই রাস্তা খারাপের জন্য অসুস্থ হয়ে পড়ছেন অনেক ছাত্র-ছাত্রীরা, সমস্যায় ভুগছেন সাধারণ মানুষ ও ব্যবসায়ীরা।

এত কিছুর পরেও ভাঙ্গড়ের মানুষ সিপিএম তৃণমূলকে ভোট দিয়ে এসেছে,কিন্তু কেউ ভাঙ্গড়ের মানুষের দুঃখের কথা শোনেনি, ভাঙ্গড়ের মানুষের পাশে দাঁড়ায়নি। তাই ভাঙ্গড়ের দীর্ঘদিনের বঞ্চনার কথা শুনতে এবার ভাঙ্গড়ের মাটিতে অল ইন্ডিয়া মুজলিসে ইত্তেহাদুল মুসলিমিন রাজনীতি করতে আসছে। ইতিমধ্যে ভাঙড়ের হাজার হাজার যুবক এর সঙ্গে যুক্ত হয়ে কাজ করা শুরু করে দিয়েছে ।